রবিবার, ২৬ জানুয়ারী ২০২০, ০৩:৩৫ পূর্বাহ্ন

ইরানের সঙ্গে চুক্তি ভাঙছে ইউরোপীয় ইউনিয়ন, আসছে নিষেধাজ্ঞা

আন্তর্জাতিক ডেস্ক :
ইরানের সঙ্গে করা ২০১৫ সালের পরমাণু চুক্তি থেকে বেরিয়ে আসার সিদ্ধান্ত নিয়েছে ইউরোপীয় ইউনিয়ন। ব্রিটেন, ফ্রান্স ও জার্মানির নেতৃত্বে এই পথে এগোচ্ছে ইউরোপীয়রা। এর মাধ্যমে ২০১৫ সালের পরমাণু চুক্তি সম্পূর্ণ অকার্যকর হতে যাচ্ছে।

ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম দ্য গার্ডিয়ান জানায়, ইরানের সঙ্গে পরমাণু চুক্তি নিয়ে যে বিবাদ চলছে সেটিকে আরও গভীরে নিয়ে গেল ইউরোপীয় রাষ্ট্রগুলো। ইউরোপের নতুন সিদ্ধান্ত অনুযায়ী, আগামী কয়েক মাসের মধ্যে ইরানের পরমাণু চুক্তি সম্পূর্ণ বাতিল হতে পারে। এতে তেহরানের ওপর আবারও ইউরোপীয় নিষেধাজ্ঞা চালু হবে।

ইউরোপের কর্মকর্তারা জানিয়েছে, ইরান যেভাবে এগোচ্ছে তাতে আগামী এক বছরের মধ্যে পারমাণবিক বোমার অধিকারী হবে তারা। তেহরানের প্রতি ওই হতাশা থেকেই ইউরোপ এই সিদ্ধান্ত নিয়েছে। সাম্প্রতিক কোনো ক্ষোভ থেকে এমন সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়নি।

গত বড়দিনের আগেই ব্রিটেন, জার্মানি ও ফ্রান্স এই সিদ্ধান্ত নিয়ে রেখেছে। সম্প্রতি মার্কিন ঘাঁটিতে ইরানি হামলা কিংবা ইউক্রেনের বিমান বিধ্বস্তের প্রেক্ষিতে এই সিদ্ধান্ত আসেনি বলে দাবি করেছে ইউরোপীয় কর্মকর্তারা।

পরমাণু চুক্তিতে স্বাক্ষরকারী ছয়টি দেশ ইরান, রাশিয়া, চীন, ফ্রান্স, জার্মানি ও ব্রিটেন এখন একটি বৈঠকে বসবে। ওই বৈঠক থেকে আলোচনার মাধ্যমে পরবর্তী সিদ্ধান্ত আসবে। ওই সিদ্ধান্ত ১৫ দিনের মধ্যে মন্ত্রীপর্যায়ে পাস হবে। এমনকি তারা ১৫ দিনের মধ্যে এটি পুনর্বিবেচনা করেও দেখতে পারবেন।

এই প্রক্রিয়া শেষে দ্রুততার সঙ্গে ইউরোপীয় ইউনিয়নের পক্ষ থেকে জাতিসংঘকে বলা হবে যে- ইরান চুক্তি ভঙ্গ করেছে। এ কারণে তাদের ওপর নিষেধাজ্ঞা জারি করা হচ্ছে।

২০১৮ সালের মে মাসে এই চুক্তি থেকে বেরিয়ে আসেন মার্কিসিন প্রেডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। যুক্তরাষ্ট্র ও ইরানের মধ্যকার বর্তমান উত্তেজনার শুরু তখন থেকেই। চুক্তি থেকে ট্রাম্প বেরিয়ে আসার পর ইউরোপীয় ইউনিয়নকেও বেরিয়ে আসার জন্য চাপ দিচ্ছিলেন তিনি। অবশেষে চাপ কাজ লাগল। এ কারণে নিশ্চয়ই খুশি হোয়াইট হাউস।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

     More News Of This Category
themesbatulpar4545
%d bloggers like this: