মঙ্গলবার, ১৯ নভেম্বর ২০১৯, ০৭:১২ পূর্বাহ্ন

মিশরের দিকে তাকিয়ে পেঁয়াজের বাজার

চট্টগ্রাম প্রতিনিধি:
পেঁয়াজের বাজার নিয়ে গুজবের সুযোগ নেই। শীঘ্রই মিশর থেকে পেঁয়াজ আসলে দাম স্থিতিশীল হবে বলে মন্তব্য করেছেন বাণিজ্যমন্ত্রী টিপু মুন্সি।

রবিবার (২৭ অক্টোবর) সকালে চট্টগ্রাম নগরীর আউটার স্টেডিয়ামে ৬ষ্ঠ বাংলাদেশ আন্তর্জাতিক বাণিজ্য ও রপ্তানি মেলা উদ্বোধন শেষে সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে এ মন্তব্য করেন তিনি।

বাণিজ্যমন্ত্রী বলেন, আমি আশা করছি এক সপ্তাহের মধ্যে মিশরের পেঁয়াজ আসবে। এরপরই দেশের বাজারে পেঁয়াজের দাম কমবে। তখন হয়তো আমরা ৮০ টাকার মধ্যে পেঁয়াজ পাব। তবে দাম নিয়ন্ত্রণে আরও এক মাস অপেক্ষা করতে হবে।

এবার আমাদের অনেক বড় শিক্ষা হয়েছে। কৃষিমন্ত্রীর সঙ্গে কথা বলা হয়েছে। তিনি জানিয়েছেন আগামীতে পেঁয়াজের উৎপাদন বৃদ্ধিতে কাজ করা হবে। আর যেন বাইরের দেশের ওপর নির্ভর করতে না হয় সে জন্য দেশীয় উৎপাদন বৃদ্ধি করা হবে। আগামী বছর থেকে এমন অবস্থা আর হবে না বলে জানান মন্ত্রী।

টিপু মুন্সি বলেন, দেশের স্থিতিশীল বাজারে পেঁয়াজ কিছুটা বেকায়দায় ফেললেও সরকারের বাণিজ্য ও ভোক্তাবান্ধব নীতি বাজারে নেতিবাচক প্রভাব পড়তে দেয়নি। আগামীতে পেঁয়াজ উৎপাদনে বাংলাদেশকে স্বয়ংসম্পূর্ণ করে তোলা হবে বলে তিনি আশাবাদ ব্যক্ত করেন।

প্রসঙ্গত, গত এক মাস ধরে দেশের পেঁয়াজের বাজারে চলছে অস্থিরতা। ৩৫টাকা দরের পেঁয়াজ এক মাসের ব্যবধানে হয়েছে ১২০ টাকা কেজি। সম্প্রতি ভারত বাংলাদেশে পেঁয়াজ রপ্তানি বন্ধ কররে দেশের বাজারে বাড়তে থাকে পেঁয়াজের দাম। তবে দেশে পেঁয়াজের সংকট না থাকলেও অসাধু ব্যবসায়ীরা কৃত্তিম সংকট তৈরি করে পেঁয়াজের দাম বৃদ্ধি করে বলে অভিযোগ রয়েছে।

তিনি বলেন, বাণিজ্য প্রসারে চট্টগ্রাম বন্দরকে আধুনিকভাবে সাজানো হচ্ছে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা চট্টগ্রাম বন্দরের উন্নয়নে সবসময় সজাগ দৃষ্টি রাখেন। তিনি চট্টগ্রাম বন্দরকে বাংলাদেশের লাইফলাইন হিসেবেও চিন্তা করেন।

তিনি আরও বলেন, উন্নয়ন সমৃদ্ধির সকল সূচকে বাংলাদেশের অবস্থান ঊর্ধ্বমুখী। এ গতিধারা ধরে রাখতে হলে সন্ত্রাস ও জঙ্গিবাদের বিরুদ্ধে সচেতন হতে হবে। এর বিরুদ্ধে সামাজিক আন্দোলনও গড়ে তোলার আহ্বান জানান তিনি।

অনুষ্ঠানে অন্যান্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন- চট্টগ্রাম মেট্রোপলিটন পুলিশের (সিএমপি) কমিশনার মো. মাহবুবর রহমান, মেট্রোপলিটন চেম্বার অব কমার্স অ্যান্ড ইন্ডাস্ট্রির (সিএমসিসিআই) সভাপতি খলিলুর রহমান, সিএমসিসিআই এর পরিচালক ও মেলা কমিটির আহ্বায়ক আমিনুজ্জামান ভূঁইয়া, সহসভাপতি এ এম মাহবুব চৌধুরী ও আব্দুস সালাম।

চট্টগ্রাম মেট্রোপলিটন চেম্বারের উদ্যোগে আয়োজিত এ মেলায় ২৪০টি দোকান, চারটি প্যাভিলিয়ন, কিডস জোন, খাবারের দোকান আছে। মাসব্যাপী এই মেলা প্রতিদিন সকাল ১০টা থেকে চলবে রাত ১০টা পর্যন্ত।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

     More News Of This Category
themesbatulpar4545
%d bloggers like this: