বুধবার, ১৮ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ০৩:৩৭ অপরাহ্ন
মানচিত্র প্রতীক

সালিশি রায় মন মতো না হওয়ায় সংঘর্ষে আহত ৪

নিকলী (কিশোরগঞ্জ) প্রতিনিধি :
কিশোরগঞ্জের নিকলীতে জমি সংক্রান্ত বিরোধের সালিশি বৈঠকের রায়ে ক্ষিপ্ত হয়ে দুই পক্ষের সংঘর্ষে পাইপগানের ছোঁড়া গুলিতে তিনজন গুলিবিদ্ধসহ আহত হয়েছেন ৪ জন।

শুক্রবার (৬ সেপ্টেম্বর) রাত সাড়ে ৯ টায় নিকলীতে জমি সংক্রান্ত বিরোধের সালিশি বৈঠক শেষে এ ঘটনা ঘটে।

জানা গেছে, নিকলী উপজেলার কারপাশা ইউনিয়নের মজলিশপুর বাজারে নিকলী উপজেলা চেয়ারম্যান ও গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গের উপস্থিতিতে জমি সংক্রান্ত বিষয় নিয়ে সালিশি বৈঠক হয়।

এ সময় বৈঠক শেষে বৈঠকের রায়ে ক্ষিপ্ত হয়ে মজলিশপুর গ্রামের মৃত রইমুদ্দিনের ছেলে কয়েস, বিপ্লব ও একই গ্রামের মজলু মিয়ার ছেলে জামান তাদের দলবলসহ দেশীয় আগ্নেয়াস্ত্র দিয়ে প্রতিপক্ষের উপর অতর্কিতভাবে গুলি ছোঁড়ে। এতে প্রতিপক্ষও পাল্টা গুলি ছোঁড়ে। ঘটনাস্থলে এ সময় উভই পক্ষের ছোঁড়া গুলির আঘাতে মজলিশপুর গ্রামের ফকিরবাড়ীর কডু ফকিরের ছেলে দুলাল, মৃত নিদু বেপারীর ছেলে সেলিম, সালামের ছেলে ইকবাল আহত হয়। দায়ের কোপে আহত হয় একই গ্রামের চান্দালীর ছেলে ইসলামুদ্দিন।

ঘটনার পরপরই এলাকাবাসী ও স্বজনরা আহতদের নিকলী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত ডাক্তার উন্নত চিকিৎসার জন্য কিশোরগঞ্জ ২৫০ শয্যা বিশিষ্ট হাসপাতালে প্রেরণ করেন।

ঘটনার দুই ঘণ্টা পর রাত ১১টায় এ বিষয়ে নিকলী থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মো. নাসির উদ্দিনের কাছে মুঠোফোনে জানতে চাইলে তিনি জানান, এ বিষয়ে তিনি এখনো কিছুই জানেন না। তিনি বলেন, হয়তো অতি উৎসাহী কেউ সাংবাদিকদের ভুল তথ্য দিয়েছে।

অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (নিকলী) মুঠোফোনে জানান, ঘটনা আমি শুনেছি, দেশীয় আগ্নেয়াস্ত্রের গুলিতে আহত, ঘটনাস্থল পরিদর্শনের জন্য আমি রওনা দিয়েছি, পরিদর্শন শেষে বিস্তারিত জানাবো।

নিকলী উপজেলা চেয়ারম্যান রুহুর কুদ্দুস ভুঁইয়া জনি মুঠোফোনে ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, সালিশি বৈঠকে দুই পক্ষকে মীমাংসা করে দেওয়া হয়েছে। তবে কিছুক্ষণ পরেই অতর্কিত এই হামলা অপ্রত্যাশিত এবং দুঃখজনক।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

     More News Of This Category
themesbatulpar4545
%d bloggers like this: