রবিবার, ১৮ অগাস্ট ২০১৯, ০৩:১৭ পূর্বাহ্ন

ব্লাড ক্যান্সারে আক্রান্ত সাংবাদিক শামীমকে বাঁচাতে আর্থিক সাহায্যের প্রয়োজন

জয়নাল আবেদীন রিটন, ভৈরব প্রতিনিধি ॥
যে মানুষটি মানুষের বিপদে আপদে নিশ্বার্থভাবে সহযোগিতার হাত বাড়িয়ে পাশে দাড়াতো সব সময়, নিজের রক্ত দান করে অন্যের জীবন বাচাতে সচেষ্ট থাকতো ,রক্ত সৈনিক হিসেবে পরিচিতি পেয়েছিল যে, আজ সেই রক্ত সৈনিক সাংবাদিক সামীম আহমেদ ব্লাড ক্যান্সারে আক্রান্ত হয়ে হাসপাতালের বিচানায় শুয়ে মৃত্যুর প্রহর গুণচ্ছেন। আল্লাহর অশেষ রহমতে আর মানুষের দোয়া ও চেষ্টায় হয়তো সুস্থতা ফিরে পেতে পারেন মরণ ব্যাধি ক্যান্সারে আক্রান্ত মুভি বাংলা ও সাপ্তাহিক অবলম্ভন পত্রিকার ভৈরব প্রতিনিধি সাংবাদিক সামীম আহমেদ।
বত্রিশ বছরের এক টগবগে যুবক। যে মানুষটি কখনো নিজের কথা চিন্তা না করে শুধু মানুষের বিপদে এগিয়ে আসত একটু মানষিক শান্তির জন্য। সেই মানুষটি ব্লাড ক্যান্সারে আক্রান্ত হয়ে হাসপাতালের বিচানায় শুয়ে মৃত্যুর প্রহর গুণচ্ছেন প্রতিটা মূহুর্ত। তিন সন্তানের জনক শামীম আহমেদ স্ত্রী, সন্তান নিয়ে অনেকটা সুখেই দিন কাটছিলো তাঁর সংসার জীবন। পেশায় সে একজন সংবাদকর্মী হলেও বিগত কয়েখ বছর ধরে নিজেকে স্বাবলম্বী ও ডিজিটাল বাংলাদেশ গড়ার প্রত্যয় নিয়ে ইউটিউব ভিত্তিক নাটক, শর্টফিম নির্মাণে অবিরত কাজ করে চলছিলেন। একজন সংবাদকর্মী ও নাটকের লোক হিসেবে ইতিমধ্যেই এলাকায় প্রশংসাও কুড়িঁয়েছেন। কিন্তু মরণব্যাধি ক্যান্সার তাঁর পিছু ছাড়েনি। মানবপ্রেমী শামীমের সকল চেষ্টাকে মাটিচাপা দিয়ে সামনে আগানোর রঙ্গিন স্বপ্নের বাতিঘরটা ক্রমশ অন্ধকার হয়ে যাচ্ছে। জলমল করা সেই বাতিঘরটা আজ মিটমিট করে জ্বলছে।

বাংলাদেশে তাঁর চিকিৎসা শুরু হলেও অবস্থার অবনতি হওয়ায় গত ১২ মার্চ পরিবারের লোকজন দ্রুত শামীমকে ভারতে নিয়ে যায়। বর্তমানে ভারতের তামিল নাড়োর চেন্নাই বেলুরে ক্রিষ্টিয়ান মেডিকেল কলেজ বেলুর (সিএমসি) হাসপাতালে হিমোটোলজী বিভাগের চিকিৎসক ডাঃ অমিত জেওয়ানের তত্ত্বাবধানে চিকিৎসাধীন রয়েছে। (হাসপাতালে ভর্তির আইডি নম্বর: ৫৭৩৬২২ঐ. গফ. ঝযধসরস অযসবফ) বাতিঘরটাকে বাঁচাতে হলে অনেক টাকার প্রয়োজন। অন্তত ১০ থেকে ১২ লাখ টাকার প্রয়োজন বলে চিকিৎসকরা জানিয়েছেন।
এই টাকা যোগান দেয়া তাঁর অসহায় পরিবারের লোকজনের পক্ষে সম্ভব নয়। সমাজের বিত্তবান ও বিবেকবান মানুষজন এগিয়ে আসলেই আল্লাহর রহমতে একটি তরতাজা প্রাণকে বাঁচানো সহজ হতে পারে। তাই পরিবারের পক্ষ থেকে সমাজের বিত্তবান, বিবেকবান ও প্রবাসীদের কাছে সাহায্যের হাত বাড়িয়েছেন অসহায় পরিবারের সদস্যরা।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

     More News Of This Category
themesbatulpar4545
%d bloggers like this: