FaceBook twitter Google plus utube RSS Feed
  

২৮ জুলাই, ২০১৭ - ৩:১৬ অপরাহ্ণ

জাতীয় পার্টি এখন বিশাল ফ্যাক্টর

রুহুল আমিন হাওলাদার জাতয় পার্টী

x

নিজস্ব প্রতিবেদক
রাজনীতিতে জাতীয় পার্টি এখন বিশাল ফ্যাক্টর বলে মন্তব্য করেছেন দলটির মহাসচিব রুহুল আমিন হাওলাদার এমপি। তিনি বলেন, জাতীয় পার্টি ক্ষমতায় যাওয়ার জন্যই নির্বাচন করবে। এরশাদের হাতের ছোঁয়ায় এ দেশের অনেক উন্নয়ন হয়েছে। ২৯ জুলাই রাজধানীর ইঞ্জিনিয়ার্স ইনস্টিটিউটে জাতীয় পার্টির নেতৃত্বাধীন ইউএনএ জোটের যৌথ সভা সফল করার লক্ষ্যে গতকাল বনানীতে পার্টি চেয়ারম্যানের কার্যালয়ে ঢাকা মহানগর উত্তর আয়োজিত যৌথ সভায় প্রধান অতিথির বক্তবে এ কথা বলেন তিনি। উত্তরের সাধারণ সম্পাদক মো. সফিকুল ইসলাম সেন্টুর সভাপতিত্বে ও গুলশান থানার সভাপতি আবদুস সাত্তারের উপস্থাপনায় সভায় আরও বক্তব্য রাখেন সংগঠনের কেন্দ্রীয় নেতা কারি হাবিবুল্লাহ বেলালী, ফকরুল আহসান শাহজাদা, গোলাম মোস্তফা, আবুল খায়ের, সিরাজুল ইসলাম, মো. ইসমাইল প্রমুখ। রুহুল আমিন হাওলাদার নেতা-কর্মীদের উদ্দেশে আরও বলেন, বিশ্বাস ও আস্থা রাখুন পল্লীবন্ধু হুসেইন মুহম্মদ এরশাদের ওপর। জাতীয় পার্টি এখন বিশাল ফ্যাক্টর, আপনাদের আরও তৃণমূলে সাংগঠনিকভাবে সুসংগঠিত হতে হবে। তিনি বলেন, জাতীয় পার্টির সুশাসনের স্বর্ণালি যুগ দেশের মানুষ ফিরে পেতে চায়। আধুনিক বাংলা গড়ার জন্য নেতা-কর্মীরা ঐক্যবদ্ধ হোন। পার্টির চেয়ারম্যানের প্রতি দেশের এবং বিদেশের মানুষের সমর্থন থাকবে। তিনি বলেন, রাস্তাঘাট, কালভার্ট, ব্রিজ, মসজিদ, মাদ্রাসা ও এতিমখানাসহ অসংখ্য উন্নয়নের ছোঁয়া রয়েছে এ দেশের প্রতিটি স্তরে। জাতীয় পার্টির পবিত্র অঙ্গীকার, ‘তোমাদের ঘাম, নিঃস্বার্থ পরিশ্রম বৃথা যাবে না, তোমাদের প্রতিদান ভুলার নয়, তোমাদের কেউ দাবিয়ে রাখতে পারবে না। তোমাদের অবদানের কথা চিরদিন মনে রাখব। আল্লাহর রহমতের ছায়াতলে এরশাদ সরকার প্রধান হবেন। ’ ২৩ জুলাই বিমানবন্দরে গণসংবর্ধনায় উপস্থিত নেতা-কর্মীদের স্বাগত ও শুভেচ্ছা জানিয়ে রুহুল আমিন হাওলাদার বলেন, গোটা বাঙালি জাতি উদ্বেলিত হয়েছে। রাজনীতিতে জাতীয় পার্টি এখন বিশাল ফ্যাক্টর। বার বার আলোচনায় আসছে জাতীয় পার্টি, সুসংগঠিত, সুশৃঙ্খল ও শক্তিশালী একটি নির্বাচনমুখী রাজনৈতিক দল। দীর্ঘ ২৬ বছর ধরে নির্বাচনে অংশগ্রহণ করে আসছে। এরশাদ জেলে থেকেও নির্বাচনে পাঁচটি আসনে দু-দুবার জয়লাভ করেছেন। দুটি দলের বার বার আঘাতের পরও ৯ বছর মানুষকে সেবা দিয়েছেন, সুশাসন দিয়েছেন, সংস্কার করেছেন, উন্নয়ন করেছেন।

print